বিট কয়েন এবং এর আদ্যোপান্ত

বর্তমান সময়ে যে কয়টা হট কেক আছে তার মধ্যে অন্যতম হচ্ছে বিটকয়েন । খুব কম মানুষই আছেন যারা এই মহামূল্যবান ক্রিপ্টোকারেন্সিটির নাম শুনেন নি! তবে বিটকয়েন নিয়ে ভাল জ্ঞান রাখেন এমন লোকের সংখ্যা খুব একটা বেশি না । বিটকয়েন কি! কিভাবে এটি আসল? কেনই বা এটি এত মূল্যবান এটি নিয়েই আজকের এই লিখা । প্রথমেই

আঠারো-উনিশ শতকের ঢাকা ও বাংলাদেশের কিছু দুষ্প্রাপ্য ছবি

ঢাকার নাম শুনলেই আমাদের চোখে যেটা ভেসে উঠে সেটা হচ্ছে বিশাল বিশাল দালানকোটা, পিচ ঢালা রাস্তা,জ্যাম,ঘিচঘিচ করা মানুষ আর বিষাক্ত আবহাওয়া। কিন্তু আঠারো-উনিশ শতকের ঢাকা এমন ছিল না। সুন্দর আবহাওয়ার একটি সুনির্মল বাসভূমি ছিল। আজকের এই পোস্টে আমরা ঢাকা ও বাংলাদেশের কিছু পুরাতন ছবি দেখব । ছবিগুলো দেখলেই বুঝতে পারবেন আমাদের রাজধানী ঢাকার পূর্ব চেহারা

“কুরস্ক” রাশিয়ার ডুবে যাওয়া একটি শ্রেষ্ঠ সাবমেরিন (পূর্ণাঙ্গ ঘটনা)

বিংশ শতাব্দীতে যে কয়টি সাবমেরিন দুর্ঘটনার শিকার হয়েছে তাদের মধ্যে ব্যারেন্টস সাগরে ডুবে যাওয়া কুরস্ক দুর্ঘটনা অন্যতম । কুরস্ক কে-১৪১, ২০০০ সালের ১২ আগস্ট সবকয়জন আরোহী সহ ব্যারেন্টস সাগরের ৩৩০ ফুট নিচে তলিয়ে যায় । তৎকালীন সময়ে সাবমেরিন উদ্ধারের জন্য খুব বেশী উন্নত প্রযুক্তি না থাকায় সাবমেরিনে আটকে থাকা ১১৮ জন ক্রুর সকলকেই নির্মম পরিনতি ভোগ

গনিত দিয়ে পৃথিবী কাপানো এই বিজ্ঞনীর আশ্চর্য্য জীবন কাহিনী

১৯৬১ সালে পুরো ভারতবর্ষে মাধ্যমিক পরীক্ষায় প্রথম। এরপর ১৯৬৩ সালে ইউনিভার্সিটি অব ক্যালিফোর্নিয়া থেকে মাত্র  বছরের মাঝে গণিতে মাস্টার্স ডিগ্রী লাভ করে ১৯৬৯ সালে গণিতে পিএইচডি। Reproducing Kernels and Operators with a yclic Vector- এর জনক হিসাবে স্বীকৃতি। ১৯৬৯ সালেই নাসার গবেষক হিসাবে যোগদান করে ১৯৭৩ সালে দেশ সেবার হানব্রত নিয়ে ফিরে আসেন ভারতে। নাসা’তে উনার অভূতপূর্ব সাফল্যের জন্য বলা হয়েছিলো- গণিতে যদি

প্রথম বিশ্বযুদ্ধঃ মানব ইতিহাসের সব থেকে গুরুত্বপূর্ণ ও ভয়াবহ যুদ্ধের ইতিহাস

যুদ্ধ মানব সভ্যতার সাথে সেই আদিকাল থেকে ওতপ্রোতভাবে জড়িয়ে আছে। সভ্যতার সূচনা লগ্ন থেকেই এই গ্রহের মানুষ বিভিন্ন সময় বিভিন্ন প্রতিকূলতার সাথে যুদ্ধ করে আসছে। বেঁচে থাকার তাগিদে কখনো বা তারা যুদ্ধ করেছে হিংস্র জীবজন্তুর সাথে ,কখনো বা প্রতিকূল আবহাওয়ার সাথে। তবে যুদ্ধ বললে প্রজন্ম থেকে প্রজন্মে মানুষ যে যুদ্ধের কথা মনে করে সেটা হচ্ছে